অফসাইডে বাতিল ৩ গোল, ন্যূনতম ব্যবধানে এগিয়ে বিরতিতে আর্জেন্টিনা

ছবি: সংগৃহীত

সৌদি আরবের রক্ষণ বনাম আর্জেন্টিনার আক্রমণ- অনুমিত ধারণা অনুসারেই এগিয়ে শেষ হয়েছে প্রথমার্ধের খেলা। লিওনেল মেসির পেনাল্টি গোলে ন্যূনতম ব্যবধানে এগিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হচ্ছে আলবিসেলেস্তেদের। কারণ, অফসাইডে বাতিল হয়েছে মেসির এক ও লাওতারো মার্টিনেজের দুইটি গোল। তবে একদম খারাপ করেনি সৌদি আরবও। হার্ভ রেনার্ডের দল দাঁতে দাঁত চেপে রক্ষণ সামলানোর সাথে রোমেরো-ওটামেন্ডিদেরও ব্যস্ত রাখেন।

ম্যাচের ৮ মিনিটে কর্নার পায় আর্জেন্টিনা। মেসির করা সেই কর্নাকে বিপদমুক্ত করা গেলেও ডি বক্সের জটলায় আর্জেন্টাইন খেলোয়াড়কে ফাউল করে বসে সৌদি আরবের খেলোয়াড়। এরপর ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারির সহায়তায় পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। স্পটকিক থেকে বরফশীতল স্নায়ুর পরিচয় দিয়ে দারুণ দক্ষতায় সৌদি গোলরক্ষক মোহামেদ আল ওয়াইসকে বোকা বানিয়ে বিশ্বকাপে নিজের ৭ম গোল করেন মেসি আর, চলতি আসরে গোলের খাতা খোলেন আর্জেন্টাইন এই তালিসম্যান।

এরপর  মেসি-ডি মারিয়া-লাওতারোদের আক্রমণে গোলের খুব কাছেই বেশ ক’বারই গেছে আলবিসেলেস্তেরা। ২৯ ও ৩৫ মিনিটে আরও দুইবার বল জালে জড়িয়েও এগিয়ে যেতে পারেনি আর্জেন্টিনা। সৌদির হাই ব্যাক লাইনের ফাঁদে পড়ে বারবার যেমন নষ্ট হয়েছে স্কালোনির শিষ্যদের আক্রমণ, তেমনি বাতিল হয়েছে তিন তিনটি গোল!

/এম ই

Explore More Districts